fbpx

IT Blog

ফেসবুক পেজের রিচ
Facebook Corporate Business

ফেসবুক পেজের রিচ, এংগেজমেন্ট কমে গেলে করনীয়

 

 

ফেসবুক পেজের রিচ!!!

ফেসবুকে বিজনেস করতে গেলে একটি কথা অনেকবার শুনে থাকবেন যে ফেসবুক আপডেটের কারনে রেসপন্স কমে গেছে। না, এরকম কথার যুক্তিতে ফেসবুক বিশ্বাসী নয়। ফেসবুক বলে তাঁরা আপডেট করে ইউজারদের সুবিধার জন্য। তবে হ্যা, প্রতিযোগিতা বাড়ছে, ফেসবুক চায় না তার সব ইউজাররা সব সময় শুধু বিজনেস পোষ্ট বা স্পন্সরড পোষ্টই দেখুক। তাই আপনার কন্টেন্ট যদি ফেসবুক ইউজার পছন্দ না করে তাহলে আপনার ফেসবুক পেজের রিচ আস্তে আস্তে কমে যাবে।

তাহলে চলুন আমরা জেনে নেই ফেসবুক পেজের রিচ, এংগেজমেন্ট কমে গেলে করনীয় কি এবং কি কি কারণে তা হতে পারে।


 

ফেসবুক পেজের রিচ, এংগেজমেন্ট কমে যাবার কারণঃ বেশ কিছু ফ্যাক্টর আছে যার কারনে আপনার পেজের পোষ্ট তথা পেজের রিচ কমে যায়, এংগেজমেন্ট হয় না বললেই চলে। কারণ গুলো হতে পারে-

  • নিয়মিত পোষ্ট আপডেট না করাঃ আপনি যদি নিয়মিত পোষ্ট আপডেট না করেন তাহলে আপনার পেজের এংগেজমেন্ট রেট কমে যাবে।
  • দীর্ঘদিন প্রমোট/বুস্ট না করাঃ অ্যাডভার্টাইজিং হল ফেসবুকের সাথে বিজনেস ওনারদের সম্পর্ক বজায় রাখার একটি কৌশল। বন্ধ করে দিলে ফেসবুকও আপনার সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করবে।
  • কুপন ব্যবহারঃ কুপন ব্যবহার এতটা মারাত্মক তা বলে বুঝানো সম্ভব নয়। কুপনের কারনে যেহেতু ফেসবুকের কোন লাভ হয় না তাই এটি ইল্লিগাল এক্টিভিটি যা আপনার পেজকে আন-পাব্লিশ করে দিতে পারে।
  • শুধু বিজনেস পোষ্টঃ আপনি কি সব সময় আপনার বিজনেস নিয়েই আপনার পেজে পোষ্ট করেন? তাহলে ভিজিটর বিরক্ত হয়ে আপনার পেজ আন-ফলো করবে।
  • শেয়ার কেনাঃ আপনার পোষ্টে ১০০০ শেয়ার করা হবে ১০০ টাকার বিনিময়ে, করবেন? করলে ধরা খাবেন। কেননা একটি আইডি থেকে বহুবার শেয়ার করলে কি হয় সেটি নিশ্চয় আপনার জানা আছে।



ফেসবুক পেজের রিচ, এংগেজমেন্ট কমে গেলে করণীয়ঃ আপনার বিজনেস পেজের পোষ্টের রিচ যদি কমে যায় তাহলে পেজের হেলথ চেক-আপ করুন। ঠিক কোন কোন কারণে রিচ, এংগেজমেন্ট কমে গেছে তা জানতে পারবেন। এই ক্ষেত্রে দক্ষ ডিজিটাল মার্কেটারের সাহায্য নিন। কি কি করনীয় হতে পারে চলুন জেনে নেয়া যাক।

দক্ষ ডিজিটাল মার্কেটারের পরামর্শঃ দক্ষ ডিজিটাল মার্কেটারের পরামর্শে পেজের হেলথ-চেক-আপ করুন। রোগ নির্ণয় করুন ও সেবা নিন।

প্রতিদিন পোষ্টঃ প্রতিদিন আপনার পেজে কিছু না কিছু পোষ্ট করুন। প্রয়োজনে সিডিউল পোষ্ট করুন।

ভাল কন্টেন্ট পোষ্ট করুনঃ কাস্টোমারকে আকৃষ্ট করবে এরকম পোষ্ট করুন। সেল পোষ্ট যত গুলো উপকারী কন্টেন্ট যেন তার থেকে বেশি হয়।

ভিডিও আপ্লোডঃ ভিডিও কাস্টোমারের মনোযোগ ধরে রাখতে সাহায্য করে। তাই ভাল মানের ভিডিও পোষ্ট করুন।

প্রমোটঃ দীর্ঘ দিন প্রোমোট না করে থাকলে ১৫-৩০ দিনের টার্গেটেড প্রোমোট দিন, কত লাইক আসল সেটির ভাবনার মধ্যে আনবেন না।

 

সর্বপরি, আপনার পেজের হেলথ চেক-আপ করে সিধান্ত নিন কি করা উচিত আর কি করা উচিত নয়। আগে সমস্যা সমাধান করুন তারপর প্রমোট/বুস্ট করুন, নয়ত সেল পাওয়া সম্ভব হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *